কৃষি বিপণন অধিদপ্তর গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ৩০ ডিসেম্বর ২০১৫

পিরোজপুর-গোপালগঞ্জ-বাগেরহাট সমন্বিত কৃষি উন্নয়ন প্রকল্প (বিপণন অংগ)

চলমান প্রকল্পের সংক্ষিপ্ত-সারঃ

১।

প্রকল্পের নাম

:

বাংলায়ঃ পিরোজপুর-গোপালগঞ্জ-বাগেরহাট সমন্বিত কৃষি উন্নয়ন প্রকল্প (বিপণন অংগ)। 

ইংরেজীঃ Perojpur, Gopalgonj, Bagerhat Integrated Agricultural Development Project (DAM-Part).

২।

মন্ত্রণালয়/বিভাগের নাম

:

কৃষি মন্ত্রণালয়

৩।

বাস্তবায়নকারী সংস্থা

:

ক) কৃষি  সম্প্রসারণ অধিদপ্তর (ডিএই) (লীড এসেন্সি)

খ) বাংলাদেশ কৃষি গবেষনা ইনস্টিটিউট (বারি)

গ)বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন (বিএডিসি)

ঘ) বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট (ব্রী)

ঙ) মৃত্তিকা সম্পদ উন্নয়ন  ইনস্টিটিউট (এসআরডিই)

চ) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর (ডিএএম)

৪।

সেক্টর

:

কৃষি

৫।

সাব-সেক্টর

:

ফসল

৬।

বাস্তবায়নকাল

:

১ জুলাই,২০১২ হতে ৩০ জুন, ২০১৭ পর্যন্ত।

৭।

প্রাক্কলিত ব্যয় (লক্ষ টাকায়)

:

মোট

t ১০০৯.০০ লক্ষ টাকা

স্থানীয় মুদ্রা

t ১০০৯.০০ লক্ষ টাকা

বৈদেশিক মুদ্রা

t --

৮।

অর্থায়ন উৎস (লক্ষ টাকায়)

:

মোট

t ১০০৯.০০ লক্ষ টাকা

জিওবি

t ১০০৯.০০ লক্ষ টাকা

প্রকল্প সাহায্য

t ------

টাকাংশ

t ------

৯।

অনুমোদন পর্যায়

:

অনুমোদিত

১০।

প্রকল্পের প্রধান উদ্দেশ্য

:

(ক) সংগ্রহোত্তর অপচয় এবং বিপণন ব্যয় হ্রাসের মাধ্যমে কৃষি বিপণন ব্যবস্থার দক্ষতা বৃদ্ধি।

(খ) সংগঠিত ব্যবস্থায় সংরক্ষিত কৃষি পণ্যের বিপরীতে কৃষকদের ব্যাংক ঋণ সুবিধা প্রদানের মাধ্যমে তাদেরকে কম মূল্যে আপদকালীন বিক্রয় (Distress sale) থেকে সুরক্ষা প্রদান।

(গ) প্রকল্প এলাকার কৃষকদেরকে টার্মিনাল ও রপ্তানী বাজারের সাথে সংযোগ স্থাপন এবং কৃষি বিপণন সেবা সম্প্রসারণের মাধ্যমে আয় বৃদ্ধিতে সহায়তা করা।

(ঘ) সুবিধাভোগীদের মাঝে গনসচেতনতা সৃষ্টি এবং Motivational ও Promotional কর্মকান্ডের মাধ্যমে এলাকাভিত্তিক নির্ধারিত কৃষি পণ্যের বাজারকে উন্নয়ন করা।

ঙ)  দারিদ্র বিমোচনের লক্ষ্যে নারীদের কৃষি ও কৃষি ব্যবসায় জড়িত করার মাধ্যমে কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্ঠি করা।

চ)  প্রকল্প এলাকার কৃষক ও সুবিধাভোগীদের পুষ্ঠিমানের উন্নয়ন।

১১।

(ক) প্রকল্পের আওতায় গৃহীতব্য কার্যাবলীর সংক্ষিপ্ত বিবরণ

:

১। প্রশিক্ষণঃ

ক) উচ্চমূল্য সংযোজন ও উদ্ধৃত্ত কৃষি পণ্যের বহুবিধ ব্যবহারের লক্ষ্যে কৃষি পণ্যের প্রক্রিয়াকরণ।  (খ) কৃষি পণ্যের অপচয় কমাতে সংগ্রহোত্তর/কর্তনোত্তর ব্যবস্থাপনা।

(গ) সংগঠিত ব্যবস্থায় সংরক্ষিত কৃষি পণ্যের বিপরীতে ব্যাংক ঋণ সুবিধা বিষয়ক (SHOGORIP Model) প্রশিক্ষণ।

(ঘ) কৃষি ব্যবসায়ী  উদ্যোক্তা উন্নয়ন।

(ঙ) আধুনিক কৃষি বাজার ব্যবস্থাপনা।

(চ) বাজার উন্নয়ন (Promotion) ও সম্প্রসারণ।

(ছ) টি ও টি (TOT)। ৫০০০ জনকে প্রশিক্ষণের আওতায় আনা হবে, যার মধ্যে ৪৫০০ জন কৃষক, ৪৫০ জন কৃষি পণ্যের ব্যবসায়ী এবং ৫০ জন ডিএএম কর্মকর্তা/কর্মচারী।

২। এ্যাসেমবল সেন্টার (Assemble Centre)ঃ ৩টি জেলার ফলমূল ও শাক-সব্জির কেন্দ্রীভূত আমদানী স্থানে  Pilot basis এ ৬টি Assemble Centre নির্মাণ করা হবে।

৪। বিপণন সহায়তা প্রদানঃ ঋণ সুবিধা প্রদান এবং সরকারী বেসরকারী অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে বীজ শিল্প এবং বীজ ব্যবসায় সহায়ক কার্যক্রম গ্রহণ করা হবে।

৫। কৃষি পণ্যের সংরক্ষণঃ বীজ, খাদ্যশস্য, ফলমূল এবং শাকসব্জীর সংরক্ষণ ব্যবস্থার উন্নয়ন।

৬। সংযোগ স্থাপনঃ কৃষকের সাথে ভোক্তা, প্রক্রিয়াজাতকারী এবং ব্যবসায়ীদের মধ্যে সংযোগ স্থাপনের কার্যকর   ব্যবস্থা করা।

৭। সার্ভেঃ প্রকল্প এলাকার Consumption Pattern এবং পুষ্ঠিমানের উপর একটি সার্ভে পরিচালনা করা   হবে।

৮। Motivational Promotional কার্যক্রমঃ বিভিন্ন মাধ্যমে (Media) ব্যাপক ভিত্তিক Motivational ও  Promotional কার্যক্রম গ্রহণ করা হবে।

৯। নির্মাণঃ নতুন গুদাম নির্মাণ ও বিদ্যমান গুদাম সংস্কারের মাধ্যমে SHOGORIP Model কে সম্প্রসারিত করা হবে।

১২

প্রকল্প এলাকা

:

১) পিরোজপুর ২) গোপালগঞ্জ ও ৩) বাগেরহাট জেলার ২১টি উপজেলা।

 
পিরোজপুর-গোপালগঞ্জ-বাগেরহাট সমন্বিত কৃষি উন্নয়ন প্রকল্প (বিপণন অংগ) পিরোজপুর-গোপালগঞ্জ-বাগেরহাট সমন্বিত কৃষি উন্নয়ন প্রকল্প (বিপণন অংগ)

Share with :
Facebook Facebook